1. asmaakter99987@gmail.com : Asma Akter : Asma Akter
  2. jannatulsifa9486@gmail.com : BD NEWS 99 :
  3. ohanafariah8@gmail.com : Fariah Jalal Ohana : Fariah Jalal Ohana
  4. help.geniusplug@gmail.com : Geniusplug Technology : Geniusplug Technology
  5. jannatulparash123@yahoo.com : Jannat Parash : Jannat Parash
  6. jannatulsifa236@gmail.com : jannatul sifa : jannatul sifa
  7. kabirtanzim2@gmail.com : Kabir Mahmud : Kabir Mahmud
  8. jakia0702@gmail.com : Kuashabrita Usha :
  9. nilmubdiol@gmail.com : Md Mubdiul Islam : Md Mubdiul Islam
  10. mituakter54402@gmail.com : Mehreen Mitu :
  11. engr.romansarkar@gmail.com : romanbd :
  12. afrinsabrin2019@gmail.com : SABRIN AFRIN :
  13. jannatul.sifa@yahoo.com : Shahjadi Mukti :
  14. soyboliny@gmail.com : Shifat Afrin Semu : Shifat Afrin Semu
  15. suchonaislam23@gmail.com : Shuchona Islam :
  16. ummayjahan3@gmail.com : Tanzina Mim : Tazina MIm
শনিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:৪৯ পূর্বাহ্ন

ঈদের নামাজ নিয়ে যা বললেন,সৌদি আরবের গ্র্যান্ড মুফতি

  • প্রকাশিতঃ মঙ্গলবার, ১৯ মে, ২০২০
  • ১৯ বার দেখা হয়েছে

ঈদের নামাজ নিয়ে বললেন,সৌদি আরবের গ্র্যান্ড মুফতি । পবিত্র মাহে রমজান চলছে। আর হাতেগোনা কয়েক দিন পরে ই উদযাপিত হবে পবিত্র ঈদুল ফিতর। বাংলাদেশ সহ বিশ্বের সব কয়টি রাষ্ট্র লক ডাউনে থাকায় ঈদের নামাজ ঘরে পড়া যাবে এমন মন্তব্য করেছেন সৌদি আরবের গ্র্যান্ড মুফতি এবং সৌদি বৈজ্ঞানিক গবেষণা কাউন্সিলের প্রধান শেখ আব্দুল আজিজ আল শেখ।আরব নিউজ এজেন্সিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে জানান তিনি,অস্বাভাবিক অবস্থায় বিশেষ করে বর্তমান করোনা পরিস্থিতি মহামারী হওয়ায় আসন্ন ঈদুল ফিতরের নামাজ ঘরে পড়া উত্তম হবে। অন্যান্য নামাযের মত করে ঈদের নামাজ ও একাকী বা ঘরে আদায় করা যাবে। সৌদি গ্র্যান্ড মুফতি এ বিপর্যয়ের মুহূর্তে সকলকে ঘর হতে বাহির না হওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।

তিনি ঘরে থেকে পরিবার-পরিজনের সাথে সময় কাটানোর জন্য এবং মহান রাব্বুল আলামিনের দরবারে প্রার্থনা করার জন্য আহবান করেন। করোনা পরিস্থিতিতে করোনা সংক্রমণ রোধ করার জন্য সৌদি আরবে কারফিউ জারি করা হয়েছে। শুধুমাত্র পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ ও তারাবি নামাজ আদায়ের জন্য সৌদির প্রধান দুই মসজিদ সহ সব মসজিদে নামাজ সীমিত করে দিয়েছে সৌদি সরকার। ধারণা করা যায় যে আসন্ন ঈদুল ফিতরের দিন ও দেশটিতে কারফিউ জারি থাকবে।

 

করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হতেই চীনে ৪.৫ মাত্রার ভূমিকম্পঃ চলতি বছরের জানুয়ারির দিকে চীনের উহান শহর থেকে করোনা ভাইরাসের উৎপত্তি হয়,যার তান্ডব এখনো শেষ হয়নি।পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসলেও আর্থিক ক্ষতি সামলে উঠতে পারেনি দেশটি।এমন বিপর্যস্ত অবস্থার মধ্যেই গতকাল রাতে ৪.৫ মাত্রার ভূমিকম্প আঘাত হানে দেশটির দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ ইউনানে।সোমবার ১৮ই মে  রাতে চীনের স্থানীয় সময় ৯ টা ৪৭ মিনিটে ৪.৫ মাত্রার এই ভূমিকম্পটি আঘাত হানে।এতে করে নিহত হয় ৪ জন আর আহত হয় ২৩ জন সূত্র চীনের ভূমিকম্প তথ্য কেন্দ্র। মার্কিন ভূতত্ত্ববিদরা দাবি করছেন ভূমিকম্পটি ৪.৫ মাত্রার ছিলো।আবার অন্য একটি সূত্র থেকে জানা যায় রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পটির মাত্রা ছিলো ৫.০ আর এর গভীরতা ছিলো ৫ মাইল।

ইউনান প্রদেশের কিয়াওজিয়া শহরে ভূমিকম্পটি হয়।প্রায় ৬০ লাখ মানুষের বসবাস এই শহরটিতে।কয়েক সেকেন্ড নাকি স্থায়ী ছিলো ভূমিকম্পটি বলছেন স্থানীয়রা।একটি বাড়ি ভেঙে পড়েছে ভূমিকম্পের ফলে।চীনের শিনহুয়া নিউজ এজেন্সি এক প্রতিবেদনে বলেন দমকল বাহিনী নিয়ে বিপর্যস্ত এলাকায় উদ্ধার কাজ চালানো হচ্ছে।চিনে প্রায় সময়তেই ভূমিকম্প হয় গতবছর দেশটির সিচুয়ান প্রদেশে শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হানে যার মাত্রা ছিলো ৬।তখন প্রাণহানি ঘটেছিলো ১৩ জনের,আহতের সংখ্যা ছিলো দুইশোর অধিক।২০০৮ সালেও চীনের সিচুয়ান প্রদেশে ভূমিকম্প আঘাত হেনেছিলো।৭.৯ মাত্রার ভূমিকম্প ছিলো সেটি।এতে প্রাণহানির সংখ্যা ছিলো ৮৭ হাজার।২০১০ সালে চিংহাই প্রদেশে ৬.৯ মাত্রার ভূমিকম্প হয়।ভূমিকম্পে চীনের জিয়েগু শহর মাটির সঙ্গে মিশে গিয়েছিলো।৩০ হাজার মানুষের এই জনপদটি হারিয়ে গিয়েছিলো সেবার।করোনা পরিস্থিতির কারণে দেশটির এমনিতেই বেহাল অবস্থা।তার মধ্যে এই ভূমিকম্প। এখন দেখার বিষয় একের পর এক ধাক্কা কিভাবে সামাল দেয় চীন।করোনার প্রভাবে চীন অর্থনৈতিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত এ অবস্থা থেকে  উত্তরণের উপায় জানা নেই কারো।

সোশ্যাল মিডিয়া পোষ্টটি শেয়ার করুন।

এই ক্যাটাগরির আরও পোষ্ট
© All rights reserved © 2020 bdnews99.com